অটোয়া, বৃহস্পতিবার ২৫ ফেব্রুয়ারি, ২০২১
কে দেবে উত্তর - প্রদ্যোৎ সেন

কাশে বাতাসে সংক্ষুব্ধ সংলাপ, 
সোনালি গমের ক্ষেতে 
ভোরের শিশিরে।
বজ্রগর্ভ চণ্ড মেঘ ঈশানে পুঞ্জিত,
অশ্রান্ত উদ্বেল জনতার অলিগলি। 
পিঙ্গল রুদ্রের হাসি 
গতিভঙ্গে বিচ্ছুরিত। 
অতীতের দম্ভচূড়ে ভয়াল হুংকার,
দুঃস্বপ্নের জাল বোনে নিষ্ঠুর বর্বর!
রুদ্ধ করে শ্রবণ দুয়ার 
অবিশ্রাম গড়িতেছে দুর্ভেদ্য দেয়াল
অজস্র প্রলুব্ধ কীট!
সূর্যের কোমল শর
বারংবার কেঁপে ওঠে শঙ্কিত সংশয়ে –
শালিক, দোয়েল, শ্যামা,
লুপ্তপ্রায় ঘুঘুদের ছোট ছোট হৃদয়ের মতো
সুউচ্চ  মিনার চূড়ে!
কে বুঝি আসিছে ওই 
অতীতের বক্ষ দীর্ণ করে!
গয়াসুর আসে নাকি ভাঙিয়া পাষাণ?
বিধির শপথ ভঙ্গে ক্ষিপ্ত গয়াসুর?
নাদির, চেঙ্গিস নয় তো?
সংশয়ের কীটগুলি কিলবিল করে
মানবিক পুষ্পদলে,  সুন্দরের ধ্যানে। 
কতবার ঘুরেফিরে এলো মীর জাফর, 
অতীতে এসেছে তারা, আসিছে এখনো। 
ভবিষ্যের গর্ভ থেকেও আসিবে আবার?
কে দেবে উত্তর?

প্রদ্যোৎ সেন। বাংলাদেশ