অটোয়া, শনিবার ২১ মে, ২০২২
মহীতোষ গায়েন’র দু’টি কবিতা

থালার মত চাঁদ উঠেছে, প্রস্তুত হও
কাশে থালার মত চাঁদ উঠেছে
একমুঠো ভাত দাও, খিদে পেয়েছে,
হাড় হিম করা শীতের সঙ্গে লড়াই
একটি কম্বল দাও শরীর কাঁপছে।

আর কতকাল প্রতীক্ষায় থাকা যায়
আর কতকাল বিনিদ্র রাত কাটবে?
সমস্ত ঘুম কেড়েছে আততায়ী অতীত
সমস্ত ভালোবাসা ঝরে গেছে নিষ্ঠুর।

মৃত্যুর আগে সমস্ত সংগ্রাম দিয়ে যাব
ঘটনার প্রতিঘাতে ঝরেছে রক্ত ও ঘাম,
বাতাসে উড়ছে ভাত, অতৃপ্ত দীর্ঘশ্বাস;
একটু ভাত, পোষাক আর আশ্রয় চাই।

সমস্ত জীবন কেটেছে অসহায় মানুষের
পাশে, অভূক্ত মানুষের মিছিল এগিয়ে
আসছে, এবার সব কিছুই ছিনিয়ে নিতে
প্রতিবাদ, প্রতিরোধের অস্ত্র শানিত হচ্ছে।

আকাশে থালার মত চাঁদ উঠেছে দেখ
গভীর রাতে বাজছে গণসঙ্গীতের সুর,
শোষণ ও বঞ্চনা প্লাবিত ময়দান তৈরি
জীবন আকাশে দীপ্ত থালার মত চাঁদ।

পরশপাথর
ম্পর্কের জল মাপতে মাপতে কখন
তুমি পাথর হয়ে গেছ নিজেও জাননা,
জাননা সম্পর্ককে সযত্নে লালন করা;
জানলে পাথরেও জন্ম নিত প্রাণকণা।

তুমি ভালোবাসার গভীরতা কতখানি
বুঝতে পারনি, পারনি বলেই এতকাল
খুঁজেছো পরশপাথর, তোমার অন্তরে
হাতড়ে দেখ,পেয়ে যাবে পরশপাথর।

তোমার আকাশ, তোমার গাছ এখনো
সন্ধ্যা নামলে আশ্রয় খোঁজে নির্ভরতা,
সংকেতের সূত্র ধরে এগিয়ে যাও,তুমি
খুঁজে পাবে পরশপাথর, কিঞ্জল প্রেম।

মহীতোষ গায়েন। কলকাতা