অটোয়া, সোমবার ২৩ মে, ২০২২
বুড়ো ভুতের সাধ - গৌতম নায়েক

বুড়ো ভুতের সাধ জেগেছে
খাবে হাতি গোটা,
হ্যান্ডসাম হবে আবার সে
হলে মোটাসোটা।
বাতের ব্যথায় ভোগে বুড়ো
দাঁতে নেই জোর,
ভেউ ভেউ করে কান্না জোড়ে
হতে না হতে ভোর।
রক্তের স্যুপ খেয়ে খেয়ে
পড়েছে পেটে চরা,
হাতি টেস্ট করবে এবার
তাই নাতিকে ধরা।

বুড়ো কবে যে অক্কা যাবে
মেটায় নাতি আশ,
পুরো হাতি আনে ধরে
সাথে ফেউ রাজহাঁস।
যেই না সে মারে কামড়
হাতির লম্বা শুঁড়ে,
চরম বেগে খুব রেগে
হাতি দাঁড়ায় ঘুরে।
বুড়োর বুকে এক পা তুলে
হাতি দেয় চাপ,
আর্তস্বরে বুড়ো চ্যাঁচায়,
বাঁচা আমায় বাপ।
নাতি এসে হ্যাঁচকা টানে
ছেঁড়ে হাতির লেজ,
দাদু চেঁচায়, মাংস ছেড়ে
খাবো এবার ভেজ।
হাঁসটাকেও দে বিদায়
কামড়ে দেবে নাকে,
দাদুর বৌ ভুতনি এসে
দাঁড়ায় এই ফাঁকে।
হচ্ছে যত বুড়ো ততো
বাড়ছে বুড়োর জিভ,
সুবুদ্ধি দাও গো তাকে
ভুতদের দেব শিব।

গৌতম নায়েক
বীরভূম, পশ্চিমবঙ্গ